Ayurveda Tips For A Youthful Glow:আপনি কি ত্বকের বার্ধক্য থেকে মুক্তি চান? তাহলে আয়ুর্বেদিক এই টিপস গুলি মাথায় রাখুন 

আপনি যদি বলিরেখা এবং কুঁচকানো ত্বকের সাথে লড়াই করছেন তবে এই সময়টি উপযুক্ত যখন আপনি এই আয়ুর্বেদ টিপস গুলিকে অনুসরণ করুন এবং আপনার ত্বকের বার্ধক্য থেকে মুক্তি পান। 

কর্মক্ষেত্রে একটি দীর্ঘ দিন, দূষণ, সূর্যের ক্ষতিকারক রশ্মি,ভাজা খাবার — আমরা যা কিছু করি এবং খাই তা আমাদের ত্বকে প্রদর্শিত হয়। যদিও কিছু সমস্যা নিয়ন্ত্রণ ও পরিচালনা করা যায়,কিন্তু  ত্বকের বার্ধক্য কখনও কখনও হাত থেকে বেরিয়ে যেতে পারে। বার্ধক্য প্রক্রিয়াটি র হাত থেকে মুক্তি পেতে আপনি বাজারে উপলব্ধ প্রসাধনী পণ্যগুলি ব্যবহার করার বিষয়ে বিবেচনা করতে পারেন। তবে এগুলি খুব ব্যয়বহুল এবং এতে কঠোর রাসায়নিক রয়েছে যা ত্বকের অতিরিক্ত সমস্যা সৃষ্টি করতে পারে।  তো, সবচেয়ে ভাল হলো প্রাকৃতিক জিনিস ব্যবহার করুন এবং এই আয়ুর্বেদ এর টিপস নিন নিজের ত্বককে যৌবন রাখতে। 

ত্বকের এই অকাল বার্ধক্য র কারণ কী?

যদিও অন্যান্য কারণ থাকতে পারে, কিন্তু ৩ টি মূল কারণ হলো 

  1. জীবনধারা: খাদ্যাভ্যাস(Food Habits) এবং অস্বাস্থ্যকর অভ্যাস। 
  2. স্ট্রেস: অপ্রকাশিত চাপ এবং স্ট্রেন। 
  3. পরিবেশগত পরিস্থিতি: ইউভি রশ্মি, দূষণ এবং খারাপ আবহাওয়া।

skin care treatment

আয়ুর্বেদ বার্ধক্য নিয়ন্ত্রণ করতে কী করতে পারে?

আয়ুর্বেদিক স্কিনকেয়ার এবং অ্যান্টি এজিং চিকিৎসার একটি ধন।  এটিতে বেশ কয়েকটি প্রাকৃতিক অ্যান্টি – বয়স গঠনের সূত্র রয়েছে এবং এটি ভেষজ, খনিজ এবং চর্বি ব্যবহারের জন্য পরিচিত যা ত্বকের স্বাস্থ্য এবং সৌন্দর্য বজায় রাখে এবং উন্নত করে।নীচে বর্ণিত আয়ুর্বেদিক টিপস অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সেলুলার সুরক্ষা, অ্যান্টি – প্রদাহজনক এবং অ্যান্টি – স্ট্রেস বৈশিষ্ট্য সহ অসংখ্য সুবিধা প্রদান করে যা পুরোপুরি বার্ধক্যজনিত লক্ষণ রোধ করতে পারে। 

১)একটি সঠিক স্কিনকেয়ার(SkinCare) রুটিন অনুসরণ করুন:-

আপনি যদি কোনও উপকারী এবং উপযুক্ত স্কিনকেয়ার রুটিন অনুসরণ না করেন তবে আপনার ত্বকের বয়স দ্রুত বাড়তে থাকবে। হালকা, ভেষজ মুখের ক্লিনজার দিয়ে আপনার ত্বক আলতো করে পরিষ্কার করুন,দেখবেন আপনার ত্বক উজ্জ্বল (Use Multani Mitti For Glowing Skin)এবং পরিষ্কার লাগছে।বার্ধক্যজনিত অকাল লক্ষণগুলি রোধ করার জন্য সানস্ক্রিনের ব্যবহারও গুরুত্বপূর্ণ কারণ ক্ষতিকারক রশ্মির দীর্ঘায়িত এক্সপোজার ত্বকের ক্ষতির কারণ হয়ে দাঁড়ায় এবং আপনার ত্বকের ক্ষতি করতে পারে। তবে সানস্ক্রিন আপনার ত্বক রক্ষা করতে পারে। 

২)হলুদ এর ব্যবহার করুন(Usage Of Turmeric):-

এই ভেষজ এমন কোনো কাজ নেই যেটা করেনা! হলুদের উপকারিতা অনেক। হলুদকে অনাক্রম্যতা বাড়াতে,কাটা-ছেঁড়া আঘাতে চিকিৎসা করতে এবং ব্যথা হ্রাস করতে সব ক্ষেত্রেই ব্যবহার করা হয়।

turmeric for skin care treatment

এই ভেষজটিতে পাওয়া কারকুমিনের(Curcumin) অ্যান্টি-এজিং বৈশিষ্ট্য রয়েছে যা ফ্রি-রেডিক্যাল দের সাথে লড়াই করতে এবং ত্বককে ক্ষতিকারক ইউভি রশ্মি (Turmeric Protect Skin From UV Ray)থেকে রক্ষা করতে সহায়তা করে। 

৩) আপনার জল খাবার পরিমাণ বাড়ান:-

জল আপনার শরীরকে হাইড্রেটেড এবং রিফ্রেশ রাখে এবং এটি ত্বকের স্থিতিস্থাপকতায়ও সহায়তা করে। 

intake water for glowing skin

যে সমস্ত লোকেরা প্রচুর জল পান করে তাদের ত্বকে দাগ, বলিরেখা এসব লক্ষ্য করা যায় না এবং যারা কম জল পান করেন তাদের ত্বকে বার্ধক্যের চাপ খুব তাড়াতাড়ি পড়ে। 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *